তিস্তার পানি না দেয়ায় ইলিশ পাঠানো বন্ধ করে দিয়েছে বাংলাদেশঃ মমতা

আন্তর্জাতিক ডেস্কঃ তিস্তার পানি না পাঠানোয় ভারতের পশ্চিমবঙ্গ রাজ্যে ইলিশ পাঠানো বন্ধ করে দিয়েছে বাংলাদেশ। এমন মন্তব্য করে এ বিষয়ে মঙ্গলবার বিধানসভায় জনগণের কাছে দুঃখপ্রকাশ করলেন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

মমতার আশ্বাস, আগামী দিনে এ রাজ্যে প্রচুর ইলিশ উত্পাদন করা হবে এবং তখন আর বাংলাদেশের ইলিশের দরকার হবে না।
মমতা জানান, ক্ষমতা এবং সুযোগ থাকলে অবশ্যই তিস্তার পানি বাংলাদেশকে দিতেন। মমতা বলেন, বাংলাদেশ আমাদের বন্ধু দেশ। কিন্তু তিস্তা থেকে পানি দেয়ার মতো পরিস্থিতি নেই।

ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি ২০১৫ সালে বাংলাদেশ সফরের সময় বলেছিলেন, তিনি তিস্তা পানি বন্টন চুক্তি বাস্তবায়ন করতে আগ্রহী। কিন্তু মমতার বিরোধিতায় বাংলাদেশ পানি থেকে বঞ্চিত হয়।

এর আগে ২০১১ সালের সেপ্টেম্বরে ভারতের সাবেক প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিং যখন ঢাকায় আসেন, ওই সময় এই চুক্তি স্বাক্ষর হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু শেষ মুহূর্তে মমতা বেঁকে বসেন এবং তখন থেকে আটকে আছে এই চুক্তির বাস্তবায়ন।

ভারত এবং বাংলাদেশের দ্বিপাক্ষিক সম্পর্ক নিয়ে যারা চর্চা করেন, তাদের মতে এই চুক্তির বাস্তবায়ন দু’দেশের সম্পর্কের ক্ষেত্রে অনেক জরুরি। মাঝে কিছু রাজনৈতিক সূত্র আভাস দিয়েছিল যে, মমতা তার অবস্থান থেকে সরে তিস্তা চুক্তিতে সম্মাতি দিতে পারেন। কিন্তু আজ বিধান সভায় মমতার কথায় পরিস্কার যে, তিস্তা পানি বন্টন চুক্তি এখন দুরস্ত।

মমতা বলেন, জ্যোতি বসুর সময় ফারাক্কা থেকে বাংলাদেশকে পানি দেয়ার চুক্তি হয়েছিল। কিন্তু এখন পরিস্থিতি আলাদা।
মমতার কাছের এক নেতা বলেন, মমতা বিশ্বাস করেন তিস্তাতে পর্যাপ্ত পানি নেই।

-টাইমস অব ইন্ডিয়া।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *